1. admin@dailytolper.com : admin :
নোটিশ:
দৈনিক তোলপাড় পত্রিকা থেকে আপনাকে স্বাগতম। তোলপাড় পত্রিকা আপনার আমার সবার। আপনার এলাকার উন্নয়নের ভূমিকা হিসেবে পত্রিকাটির মাধ্যমে আমরা দায়িত্ব নিয়েছি।   এ জন্য বাংলাদেশের প্রতিটি জেলা-উপজেলা-বিভাগ-কলেজ ক্যাম্পাসসহ গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় সাংবাদিক নিয়োগ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পত্রিকাটির পর্ষদ।  আগ্রহী হলে আপনিও এক কপি রঙিন ছবিসহ নিম্ন ঠিকানায় সিভি প্রেরণ করে নিয়োমিত সংবাদ পাঠাতে পারেন।   প্রচারে প্রসার, আপনার প্রতিষ্ঠান সারা বিশ্বে প্রচারেরর জন্য বিনামূল্যে বিজ্ঞাপন দিতে পারেন।   বিজ্ঞাপন প্রচারের জন্য যোগাযোগ করুন-০১৭১৯০২৬৭০০, prohaladsaikot@gmail.com

শিরোপা কার, ভারত না বাংলাদেশের

  • আপডেটের সময় : বৃহস্পতিবার, ৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪
  • ৮ টাইম ভিউ

Visits: 0

বাংলাদেশের দ্বিতীয় নাকি ভারতের প্রথম? এই প্রশ্নটিই এখন অনূর্ধ্ব-১৯ নারী ফুটবল নিয়ে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে রয়েছে। বৃহস্পতিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) সাফ অনূর্ধ্ব ১৯ নারী চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের পর পাওয়া যাবে এই উত্তর। তবে ফলাফল যাই হক ম্যাচে নিজেদের সেরাটা দিতে মুখিয়ে আছে বাংলাদেশের মেয়েরা। শিষ্যদের লড়াকু মানসিকতায় ভরসা কোচ টিটুর। অন্যদিকে, লিগপর্বের ভুল শুধরে শিরোপায় চোখ ভারতের।-খবর তোলপাড় ।

ফুটবলে সাফল্যের গল্প মানেই তার রুপকার বাংলাদেশের নারী ফুটবল। যার বেশিরভাগ সাফল্য এসেছে বয়সভিত্তিক আসরগুলোতে। আর এখানে মেয়েরা আরও ধারাবাহিক। সর্বশেষ ২০২১ সালে এই ভারতকে হারিয়ে সাফের শিরোপা উচিয়ে ধরেছিল বাংলার মেয়েরা। তবে বয়সভিত্তিক ফুটবলে মেয়েরা নিয়মিত সাফল্য পেলেও এখন পর্যন্ত শিরোপা ধরে রাখার নজির নেই। এবার সেই পুরানো প্রথা ভেঙ্গে শিরোপা ধরে রাখাবে বাংলাদেশ এমনটাই প্রত্যাশা করেছেন দেশের ফুটবল সমর্থকরা।
পরাজয়ে শেষ হলো মেসিদের এশিয়া সফর

দুই বছর পর অনূর্ধ্ব-১৯ সাফের ফাইনালে আবারও প্রতিপক্ষ ভারত। দু’দলের দ্বৈরথের ভেন্যুটাও অপরিবর্তিত। সাম্প্রতিক পারফরম্যান্স কিংবা সার্বিক বিবেচনায় স্বাভাবিকভাবে এগিয়ে স্বাগতিকরা। তবে কোচ এটা মানতে নারাজ। পুরানো দল কিংবা পুরানো মঞ্চ হলেও দুই দলের ফুটবলাররা অনেকেই নতুন। এমনকি অনূর্ধ্ব-১৭ নারী বিশ্বকাপে খেলা ফুটবলার রয়েছে ভারতের এই দলে।

প্রতিপক্ষ হিসেবে সব সময় ভারত কঠিন। এমনকি চলতি আসরে সবচেয়ে বেশি গোলও দিয়েছে সফররতরা। তবে এসব নিয়ে ভাবছেন না অনূর্ধ্ব-১৯ নারী দলের অধিনায়ক আফিদা খন্দকার। খেলতে চান নিজেদের স্বাভাবিক খেলা। আফিদা বলেন, ‘আমরা যতটা কঠোর পরিশ্রম করেছি তার উপর আমাদের আত্মবিশ্বাস আছে। আর আত্মবিশ্বাসী হয়েই মাঠে নামবো আমরা।’

চলতি আসরে গ্রুপ পর্বে ম্যাচে ভারতের সাথে শেষ মুহূর্তে জয় পেয়েছে আফিদা-সাগরিকারা। তাইতো ফাইনালের আগে অনুশীলনে বেশ সতর্ক সাইফুল বারী টিটুর শিষ্যরা। পেনাল্টি শ্যুট আউটের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে।

এদিকে বাংলাদেশ দলের কোচ সাইফুল বারী টিটু বলেছেন, ‘কখনোই বলতে পারবেন না যে আপনি চ্যাম্পিয়ন হবেন বা এগিয়ে আছেন। কারণ প্রতিপক্ষকে সম্মানটা দিতে হবে। বিশেষ করে ভারতের অনূর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপ খেলা কিছু খেলোয়াড় আছে। ওরা ইউরোপের দলের সাথে খেলেছে। যেটা আমাদের মেয়েরা খেলেনি।’

টিটু আরও বলেন, ‘আমাদের যেমন আগের সব খেলোয়াড় নাই, তাদেরও নাই। এজন্য এটা অন্যরকম একটা দিন। তাই জয়ের জন্য মরিয়া হওয়াটা জরুরি।’

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর
© All rights reserved © 2017 তোলপাড়
Customized BY NewsTheme